এইমাএ পাওয়া

মঙ্গলবার ঢাকায় শুরু হচ্ছে ১৪ দেশের কারাপ্রধানদের সম্মেলন

মে ১৪, ২০১৭

নিজস্ব প্রতিবেদক, বিনিয়োগ বার্তা:
‘কারাগারের মধ্যে নিরাপত্তা এবং মানবিক চাহিদার ভারসাম্য’ শিরোনামে প্রথমবারের মতো ঢাকায় শুরু হচ্ছে ৪র্থ এশিয়-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলের কারেকশনাল ম্যানেজারদের নিয়ে আঞ্চলিক সম্মেলন।

রাজধানীর কারা অধিদফতরে আজ রবিবার দুপুরে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান কারা মহাপরিদর্শক (আইজি প্রিজন্স) ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সৈয়দ ইফতেখার উদ্দিন।

আন্তর্জাতিক রেড ক্রস কমিটির (আইসিআরসি) বাংলাদেশের হেড অফ ডেলেগেশন ইখতিয়ার আসলানভ সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন।

আন্তর্জাতিক রেড ক্রস কমিটি (আইসিআরসি) ও বাংলাদেশ কারা অধিদফতর যৌথভাবে আগামী ১৬ থেকে ১৯মে ঢাকার লা মেরিডিয়ান হোটেলে ৪র্থ এশীয়-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলের কারেকশনাল ম্যানেজারদের নিয়ে আঞ্চলিক সম্মেলনের আয়োজন করেছে। এ সম্মেলনে বাংলাদেশসহ ১৪ দেশের ২৮ জন সিনিয়র কারেকশনাল ম্যানেজারসহ মোট ৫১জন প্রতিনিধি অংশ নিবেন।

আইজি প্রিজন্স জানান, মঙ্গলবার সকাল ৯টায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল এমপি অনুষ্ঠানের উদ্ভোধন করবেন।

ইফতেখার উদ্দিন বলেন, অংশগ্রহণকারীরা বিভিন্ন কেস স্টাডি ব্যবহার করে তাদের অভিজ্ঞতা বিনিময় করবেন। কারাগার বা বন্দিশালাগুলো তৈরি, ডিজাইন, পরিকল্পনা এবং পরিচালনার সময় যেন নিরাপত্তা ও মানবিক অবস্থার মধ্যে ভারসাম্য বজায় রাখার ওপর গুরুত্ব সম্পর্কেও আলোচনা করা হবে।

এছাড়াও সম্মেলনে বিভিন্ন প্যানেল আলোচনায় বন্দিদের শ্রেণিভুক্ত করা এবং তাদের পরিদর্শনের গুরুত্ব প্রাধান্য পাবে। বাংলাদেশে এবারই প্রথম বাংলাদেশ কারা অধিদফতর ও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ আইসিআরসির সঙ্গে যৌথভাবে কারা সম্পর্কিত এ ধরণের আঞ্চলিক সম্মেলন আয়োজন করা হয়েছে।

আইজি প্রিজন্স বলেন, গত বেশ কয়েক বছর ধরে আমরা আইসিআরসির সাথে একটি গতিশীল কাজের সম্পর্ক গড়ে তুলেছি এবং এই অঞ্চলে আমাদের সমকক্ষদের সাথে বিভিন্ন আলোচনায় অংশগ্রহণ করেছি। আমরা আশা করি অংশগ্রহণকারী প্রতিবেশী দেশের অভিজ্ঞতা ও পর্যবেক্ষণ থেকে শিখবে এবং তাদের নিজস্ব বন্দি সুবিধাগুলো উন্নত করতে অনুপ্রাণিত হবে।

আয়োজকরা জানান, এবারের সম্মেলনে অংশগ্রহণকারী দেশগুলোর মধ্যে রয়েছে— বাংলাদেশ, কম্বোডিয়া, চীন, ফিজি, ইন্দোনেশিয়া, মালয়েশিয়া, মালদ্বীপ, মিয়ানমার, পাকিস্তান, পাপুয়া নিউগিনি, ফিলিপাইন, শ্রীলঙ্কা, থাইল্যান্ড এবং ভানুয়াতু।
ভারত এবারের সম্মেলনে কেন অংশ নিচ্ছে না এমন প্রশ্নে আয়োজকরা জানান, গত কয়েকটি বছর ভারত এই সম্মেলনে প্রতিনিধিত্ব করলেও এবার কেন থাকছে না তা জানা নেই।

আইসিআরসি বাংলাদেশের হেড অফ ডেলেগেশন ইখতিয়ার আসলানভ বলেন, আইসিআরসি সুষ্ঠুভাবে কারাগার ব্যবস্থাপনা করতে এশিয়-প্রশান্ত মহাসাগরীয় দেশগুলিকে একে অপরের অভিজ্ঞতা থেকে উপকৃত হতে উৎসাহিত করে। এই সম্মেলনের মাধ্যমে এ অঞ্চলের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক আরও জোরদার হবে এবং বন্দিদের হয়ে আমাদের কাজ পরিচালনা সহজতর হবে।

তিনি আরও বলেন, গত ১৪০ বছরের বেশি সময় ধরে আইসিআরসি ৯০টিরও বেশি দেশে কারাবন্দিদের জন্য বন্দি পরিদর্শন কার্যক্রম পরিচালনা করছে। এ কার্যক্রম সম্পূর্ণভাবে মানবিক উদ্দেশ্যে পরিচালিত, বন্দিদের শারীরিক ও মানসিক কল্যাণ সাধণ এবং তাদের চিকিৎসা ও বন্দিত্বের পরিবেশ ডাতে আন্তর্জাতিক মানবিক আইন ও আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত অন্যান্য মানদণ্ড অনুযায়ী হয় তা নিশ্চিত করা।

বিনিয়োগ বার্তা/মাসুদ/এমআর